ফেনী

ফেনীতে শ্বশুরবাড়িতে জামাইয়ের ঝুলন্ত লাশ

পুলিশ ফেনীর দাগনভূঞায় শ্বশুরবাড়ি থেকে এক যুবকের ঝুলন্ত মরদেহ উদ্ধার করেছে।

শনিবার (২০ আগস্ট) বিকেলে এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন দাগনভূঞা থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো. হাসান ইমাম। এর আগে উপজেলা সদর ইউনিয়নের দক্ষিণ আলীপুর এলাকায় একই দিন দুপুরে এ ঘটনা ঘটে।

নিহত জহির আহাম্মদ (৩৮) দাগনভূঞা পৌরসভার ৩ নম্বর ওয়ার্ডের বেতুয়া গ্রামের আলম মেম্বার বাড়ির মৃত ছিদ্দিকুর রহমানের ছেলে।

জানা গেছে, আজ শনিবার ওই এলাকায় বেলা সাড়ে ১১টার দিকে শ্বশুর আমিন উল্যার বাড়িতে সিলিং ফ্যানের সঙ্গে গামছা পেঁচিয়ে ফাঁস দিয়ে আত্মহত্যা করে জহির। এ সংবাদ পেয়ে পুলিশ বাড়ির একটি কক্ষ থেকে ঝুলন্ত অবস্থায় তার মরদেহ উদ্ধার করেন।

নিহতের স্ত্রীর বড়ভাই দেলোয়ার হোসেন বলেন, বিয়ের পর থেকে আমাদের বাড়িতে বসবাস করছিলেন জহির। তিনি সিজোফ্রেনিয়া রোগে ভুগছিলেন দীর্ঘদিন। কয়েক দিনের মধ্যে চট্টগ্রাম নিয়ে চিকিৎসা করানোর কথা ছিল। আমরা বিভিন্ন জায়গায় ডাক্তার দেখিয়েছি।

এ বিষয়ে দাগনভূঞা থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো. হাসান ইমাম জানান, আজ শনিবার দুপুরে মরদেহটি উদ্ধার করা হয়েছে। লাশটি ময়নাতদন্তের জন্য ফেনী জেনারেল হাসপাতালের মর্গে পাঠানো হয়েছে।

আরও পড়ুনঃ ফেনীতে শ্বশুরবাড়িতে জামাইয়ের ঝুলন্ত লাশ।

Leave a Reply

Your email address will not be published.